ফেব্রিক GSM নিয়ে কিছু তথ্য জেনে রাখুন

ফেব্রিক GSM নিয়ে কিছু কথা এবং সমস্যা গুলি
জিএসএম( GSM) মানে হলো গ্রাম /স্কয়ার মিটার । সহজ করে বললে – এক স্কয়ার মিটার কাপড়ের ওজন যত গ্রাম সেটাই তার জিএসএম । আর স্কয়ার মিটার হলো এক মিটার দৈর্ঘ্য ও এক মিটার প্রস্থ বিশিষ্ট কোন বর্গ ।
জিএসএম মাপা কাপড়ের মাপঃ
আর স্কয়ার মিটার দৈর্ঘ্য ও প্রস্থ বিশিষ্ট বর্গ উভয় কোন = ১১ সেন্টিমিটার হয়।
ফেব্রিক GSM : নিয়ে কিছু আলোচনা
১. নীট কাপড় কে কেজি হিসেবে কেনা হয় আর ওভেন কাপড় কে গজে কেনা।
২. GSM শুধু মাত্র নীটে মাপা হয় ওভেন কাপড় এর GSM মাপা হয় না। ইদানীংকালে আমাদের বায়াররা কাপড় এর জন্য GSM এর লিমিট ধরিয়ে দিচ্ছেন।
৩. ওভেন কাপড় এর বডি বা সেল কাপড় এর GSM চেক করেন বায়ার পকেটিং এর কাপড় বা কন্ট্রাস্ট কাপড় এর GSM চেক করেন না।
৪. GSM টলারেন্স +-৫ এটাই স্টেন্ডার্ড কিন্তু প্রডাকশনে আমরা +-১০ পর্যন্ত আমরা ডেলিভারি দেই নীট ও ওভেন উভয়ের জন্য।
৫. ফিজিক্যাল প্রপার্টির মধ্যে Shrinkage এর পর GSM সবচেয়ে গুরুত্বপূর্ণ।
৬. নীট এবং ওভেন উভয়ের Width কমাইয়া Length এ ওভার ফিড দিলে GSM এমন বাড়ে।
৭. কাপড় রিলাক্সয়ে রাখলে বা ঠান্ডা করলে GSM বাড়ে।
৮. ওভেন কাপড় এর GSM বাড়াইতে কাপড় কে সানফোরাইজ করে দিতে হয়। ফুল স্টিম দিলে GSM বেশি বাড়ে।
১০. নীট কাপড় এর GSM বায়ার Required GSM এর চেয়ে বেশি হয়ে গেলে এর জন্য বেশি কাপড় দিতে হয় কারন কাপড় খেপে যায় এর জন্য বডি কম বা শর্ট হয়ে যায়, তাই বাডি কোয়ানটিটি ফিল আপ এর জন্য বাড়তি কাপড় জরিমানা দতে হয়।
GSM বাড়ানোর ম্যাকানিক্যাল প্রসেস
Dia ফিক্সড + GSM বাড়াতে হবেঃ
১. টেনশন লেস করে ৮০% – ১০০% ওভার ফিড দিয়ে স্টেনটারে ফিনিশ করে দিতে পারেন
২. ফেব্রিক রোল বাই রোল হাইড্রো এক্সট্রাক্ট করে রিলাক্স ড্রায়ারে ড্রাই করে নিতে হবে।
৩. ফেব্রিক রোল বাই রোল হাইড্রো এক্সট্রাক্ট করে ট্রাম্বেল ড্রায়ারে ড্রাই করে নিতে হবে।
Dia ফিক্সড না + GSM বাড়াতে হবেঃ
১. ওভার ফিড দিয়ে কম্পেক্টিং করে নিলেই GSM বাড়বে ।
২. স্টিমে দিয়ে সানফোরাইজ করে নিতে হবে এবং ব্লাংকেট প্রেশার বাড়িয়ে দিতে হবে।
GSM কমাতে হবেঃ
১. Dia + করে আন্ডার ফিডিং করে চালালে GSM কমে যাবে
২. বিনা স্টিমে ব্লাংকেট প্রেশার কমিয়ে কম্পেক্টিং করতে হবে।
GSM কম বেশি হলে যে যে সমস্যা গুলি হতে পারেঃ
GSM কম বেশি হলে সমস্যা হয়ঃ
GSM এর জন্য বায়ার এর সুনির্দিষ্ট এপ্রুভাল এবং রিঞ্জেক্টশন টলারেন্স রেঞ্জ আছে যা Target GSM এর +/- 5% পর্যন্ত চলে । কিন্তু ফেক্টরি গুলিতে ইন হাউস টলারেন্স রেঞ্জ +/- 10%.
GSM কম বেশি হলে যে যে সমস্যা গুলি হতে পারে :
১. কাপড় এর GSM বেশি মানে ওই কাপড়ে লুপের পরিমান বেশি আর লুপের পরিমান বেশি মানে সুতার পরিমান বেশি তাই কাপড়ে সুতা বেশি ব্যাবহার করা ম্যানুফেচারার এর লসের কারন। তাই চাইলে GSM বেশি দেয়া যাবে না ।
২. GSM বাড়লে কাপড় এর কম ভলিউমে বা আয়তনে ওয়েট বেড়ে যায় যার ফলে গার্মেন্টস কাটিংয়ে গেলে ওয়েট অনুযায়ী কাপড় পেলেও বডির পরিমান শর্ট হয়ে যায়।
৩. বায়ার প্যাকিং এর জন্য আলাদা নির্দেশনা দেয়া থাকে যে প্রতিটা প্যাকে কয়টা বডি থাকবে এখন GSM বড়লে বডির ভলিউম বড়বে যা প্যাকে নাও ধরতে পারে তাই বায়ার এর ক্যাল্কুলেটেড এবং এক্সপেক্ট GSM অনুযায়ী কাপড় দিতে হবে।
৪. কাপড় এর GSM অনুযোয়ী তার জন্য কেয়ার লেবেল তৈরি করা হয় যার কিন্তু GSM এর ভেরিয়েশন হলে কাপড় এর ওয়াসিং এর ক্যামিকেল এর রেসিও কাজ করবে না যার ফলে সুনির্দিষ্ট GSM অনুযায়ী কাপড় দিতে হবে।
৫. গার্মেন্টস যদি শিপমেন্ট এর পরিবর্তে এয়ার হয় তবে বেশি GSM এর ফলে প্যাকেট এর ওয়েট বেড়ে যাবে যার ফলে এয়ার কস্ট / চার্জ বেড়ে যাবে আর এই চার্জ কোম্পানিকে বহন করতে হবে।
৬. ফ্যাশন ডিজাইনার গন GSM নির্ধারন করেন এনভায়রনমেন্ট, ওয়েদার অনুযায়ী যেমন প্রডাক্ট কি মিডেল ইস্ট, ইউরোপ, আমেরিকা কোথায় চলবে তার উপর ভিত্তি করে যেমন সৌদিতে High GSM হলে যেমন তাদের বিরক্তির কারন হবে তেমনি ইউরোপ এর জন্য লোয়ার GSM তাদের জন্য আরামদায়ক হবে না।
৭. GSM কম হলে তা রিকোভার করার জন্য রিফিনিশিং, রিপ্রসেস করার প্রয়োজন হয় যা চার্জ ফিনিশিং চার্জ এর মতোই তাই ম্যানুফেচারার এর কস্টিং বাড়ায়।

Leave A Comment

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Cart
Your cart is currently empty.